Cric GossipIPL League

আইপিএলে উপার্জিত টাকা দিয়ে বাবার কোভিড চিকিৎসা করাচ্ছেন রাজস্থানের এই তরুণ প্লেয়ার

রাজস্থান রয়্যালসের ফাস্ট বোলার চেতন সাকারিয়া বলেছেন, ২০২১ সালের ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগ থেকে উপার্জিত টাকায় এখন তাঁর বাবার চিকিৎসা করাচ্ছেন। ২৩ বছর বয়সী এই প্লেয়ার রাজস্থানের হয়ে ১.২০ কোটি টাকা বিনিময়ে আইপিএলে আত্মপ্রকাশ করেন। এই সিমার বলেন যে আইপিএল তাকে তার ‘কঠিনতম সময়ে’ নিজের পায়ে দাঁড়াতে সহায়তা করেছে। “আমি ভাগ্যবান কারণ আমি কিছুদিন আগে রাজস্থান রয়্যালস থেকে আমার পার্ট পেমেন্ট পেয়েছি। আমি সরাসরি বাড়ি ফিরে টাকা পাঠিয়ে দিয়েছি এবং এটি আমার পরিবারকে কঠিন সময়ে সবচেয়ে বেশি সহায়তা করছে” দ্য নিউ ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেসের সাথে এক সাক্ষাৎকারে সাকারিয়া বলেন।

ক্রিকেটই আমার উপার্জনের একমাত্র উৎস: চেতন সাকারিয়া

পরিবারের একমাত্র উপার্জনকারী সাকারিয়া। ক্রিকেটই তার আয়ের একমাত্র উৎস এবং ক্রিকেট খেলে পাওয়া টাকাই তার বাবাকে প্রয়োজনীয় চিকিৎসা সরবরাহ করতে সহায়তা করেছে। “মানুষজন বলছে আইপিএল বন্ধ করো। আমি তাদের কিছু বলতে চাই; আমি আমার পরিবারের একমাত্র রুটি উপার্জনকারী। ক্রিকেটই আমার উপার্জনের একমাত্র উৎস। আইপিএল থেকে আমি যে অর্থ উপার্জন করেছি তার কারণে আমি আমার বাবাকে আরও ভাল চিকিৎসা দিতে পারছি। “এই টুর্নামেন্ট এক মাস না চললে আমার আরও কঠিন হত। আমি দরিদ্র পরিবার থেকে এসেছি; আমার বাবা সারা জীবন টেম্পো চালিয়েছিলেন; এবং আইপিএলের কারণে আমার সারা জীবন পরিবর্তন হতে চলেছে” তিনি যোগ করেন।

সাকারিয়া টুর্নামেন্ট স্থগিত হওয়ার আগে রয়্যালসের হয়ে সাতটি খেলা খেলেন। পাঞ্জাব কিংসের বিপক্ষে তার প্রথম খেলায় তিনি ৩১ রানে তিন উইকেট নিয়ে ফিরে আসেন এবং কেএল রাহুল, মায়াঙ্ক আগরওয়াল ও ঝিয়ে রিচার্ডসনকে আউট করেন। সুরেশ রায়না, অম্বাতি রায়ডু এবং এমএস ধোনিকেও তিনি আউট করেছিলেন। আইপিএলের আগে, সাকারিয়ার মাত্র ১৬টি টি-২০ ম্যাচ খেলার অভিজ্ঞতা ছিল যেখানে তিনি ২৮ উইকেট নিয়েছিলেন।

আরও পড়ুন

Back to top button