Cricket News

অস্ট্রেলিয়ার পরিকল্পনাকে চ্যালেঞ্জ হিসাবে নিচ্ছেন জানালেন শ্রেয়াস

আইপিএলে দুরন্ত ছন্দে ছিলেন। সেই শ্রেয়াস আইয়ারকে আটকাতে বিশেষ পরিকল্পনা নিয়েছে অস্ট্রেলিয়া। শ্রেয়াস আইয়ার কিন্তু তাতে একটুও ভীত নন, বরং উচ্ছ্বসিত। তাঁর বক্তব্য, অস্ট্রেলিয়া তাঁর জন্য আলাদা পরিকল্পনা করায় তিনি অভিভূত। চ্যালেঞ্জ হিসেবে নিচ্ছেন তিনি।

অস্ট্রেলিয়া তিন ম্যাচের একদিনের সিরিজে নামার আগে ঠিক করেছিল, শর্ট বলে শ্রেয়াসকে কাবু করবে। শ্রেয়স পাল্টা ঠিক করেছেন, ফিল্ডিং বিধিনিষেধের সুবিধে নিয়ে তিনি আক্রমণে যাবেন। প্রথম ম্যাচে হ্যাজলেউডের শর্ট বল সামলাতে না পেরে মাত্র ২ রান করে আউট হন শ্রেয়াস। দ্বিতীয় ম্যাচে মোজেস হেনরিকসের বলে তাঁর দুরন্ত ক্যাচ নেন স্টিভ স্মিথ। সেই ম্যাচে তিনি ৩৬ বলে ৩৮ রান করেন।

তৃতীয় একদিনের ম্যাচে নামার আগে শ্রেয়াস বলেছেন, “আমার বিরুদ্ধে ওরা যে বিশেষ পরিকল্পনা করেছে, তার জন্য আমি খুশি। আমি সত্যিই অভিভূত এবং এটাকে চ্যালে়ঞ্জ হিসেবে নিচ্ছি। চাপের মুখে খেলতে আমার ভাল লাগে। নিজেকে উদ্বুদ্ধ করতে পারি। আমার তো মনে হয় একটা শর্ট লেগ বা লেগ গালি থাকলে সেটাকে খুব ভালভাবে ব্যবহার করা যায় এবং ওই জায়গা দিয়ে অনেক রান করা যায়। কে কীভাবে মানিয়ে নিচ্ছে, সেটা পুরোটাই মানসিকতার ব্যাপার। খুব ঝুঁকে স্টান্স নিলে হবে না। একটু বুক চিতিয়ে স্টান্স নিতে হবে। এমনিতে আমার খেলার একটা নির্দিষ্ট ধাঁচ আছে। শুরুতে একটু সময় নিয়ে তারপর আমি হাত খুলি। কিন্তু ওরা যদি শর্ট বলে ওই ধরণের ফিল্ড নিয়ে আমার বিরুদ্ধে বল করে, তাহলে শুরু থেকেই আক্রমণে যাব। কারণ, ওই ধরণের ফিল্ড থাকলে রান তুলতে সুবিধে হয়।”

শ্রেয়াস অবশ্য স্বীকার করে নিচ্ছেন, প্রথম ম্যাচে শর্ট বাছাইয়ের ক্ষেত্রে তিনি একটু ধন্ধে ছিলেন। বলেন, ‘‌জানতাম ওরা শর্ট বল করবে। কিন্তু সেটা কীভাবে খেলব, তা নিয়ে একটু দোটানায় ছিলাম। একবার ভেবেছিলাম পুল করব। একই সঙ্গে মনে হয়েছিল, আপারকাট করলে কেমন হয়। এই দোটানায় থাকার জন্য ঠিকমতো শট খেলতে পারিনি।’‌

 

আরও পড়ুন

Back to top button