Connect with us

Cric Gossip

Indian cricketer: বিধি-নিষেধের সময়সীমা পার করলেন সূর্য কুমার যাদব এবং পৃথ্বী শ, পরের ম্যাচে কি সুযোগ পেতে পারেন তারা?

Advertisement
Advertisement

বর্তমানে ভারতীয় দল বিরাট কোহলির নেতৃত্বে ইংল্যান্ড সফর করছে। ওয়ার্ল্ড টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের ফাইনাল খেলতে এসেছে সেখান থেকেই ইংল্যান্ডে করছে ভারতীয় ক্রিকেটাররা। ভারতীয় স্কোয়াডের অংশ হিসেবে এসেছিলেন ওয়াশিংটন সুন্দর, শুভমান গিল এবং আবেশ খান। যারা চোটের জন্য ইতিমধ্যে ভারতে ফিরেছে। তাদের জায়গায় শ্রীলঙ্কা থেকে উড়িয়ে নিয়ে যাওয়া হয়েছিল তরুণ ক্রিকেটার পৃথ্বী শ এবং সূর্য কুমার যাদবকে। ইংল্যান্ড ক্রিকেট বোর্ডের নিয়ম অনুযায়ী বাইরে থেকে আসা যে কোন ক্রিকেটারকে কমপক্ষে ১০ দিন বাধানিষেধের মধ্যে থাকতে হবে। অর্থাৎ দশ দিনের কোয়ারেন্টাইন বাধ্যতামূলক।

সূর্য কুমার যাদব এবং পৃথ্বী শ চলতি মাসের ৩ তারিখে শ্রীলঙ্কার কলম্বো থেকে ইংল্যান্ডের উদ্দেশ্যে যাত্রা করেছিলেন। ইংল্যান্ড ক্রিকেট বোর্ড এবং ভারতীয় ক্রিকেট কন্ট্রোল বোর্ডের তত্ত্বাবধায়নে স্পেশাল প্লেনে করে পৌঁছেছিলেন ইংল্যান্ডে। ইংল্যান্ড ক্রিকেট বোর্ডের নিয়ম অনুযায়ী এতদিন তারা কোয়ারেন্টাইনে ছিলেন। গতকাল তাদের কোয়ারেন্টাইনের সময়সীমা উত্তীর্ণ হয়েছে। তাই লর্ডসের স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত দ্বিতীয় টেস্টের চতুর্থ দিনের খেলা দেখার জন্য স্টেডিয়ামে পৌঁছেছেন সূর্য কুমার যাদব এবং পৃথ্বী শ। বিসিসিআই তাদের কোয়ারেন্টাইন উর্ত্তীন্ন হওয়ার খবর টুইট মাধ্যমে প্রকাশ করেছে।

ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে দ্বিতীয় টেস্টের চতুর্থ দিনের খেলা চলছে আজ। টসে জিতে প্রথমে ইংল্যান্ড ভারতকে ব্যাটিং করার আমন্ত্রণ জানায়। প্রথম ইনিংসে ব্যাটিং করে ভারত সবকটি উইকেট হারিয়ে ৩৬৪ রান করে। প্রথম ইনিংসে দলের হয়ে সর্বোচ্চ রান করেন কে এল রাহুল (১২৯)। এছাড়া রোহিত শর্মা ৮৩ রানের অনবদ্য ইনিংস খেলেন। প্রথম ইনিংসে ব্যাটিং করতে নেমে ইংল্যান্ড সবকটি উইকেট হারিয়ে ৩৯১ রান সংগ্রহ করে। প্রথম ম্যাচের মতোই দলের অধিনায়ক জো রুট দলের পুরো দায়িত্ব নিজের কাঁধে তুলে নেন। তিনি অপরাজিত ১৮০* রানের দুর্দান্ত ইনিংস খেলেন। বর্তমানে ভারত দ্বিতীয় ইনিংসে ব্যাটিং করছে। ভারতের ওপেনিং জুটিতে রান আসলেও মিডল অর্ডার থেকে তেমন কোনো প্রতিক্রিয়া আসছে না দলের জন্য। তাই সিরিজের দ্বিতীয় ম্যাচে কি দলে যুক্ত হতে চলেছে সূর্য কুমার যাদব কিংবা পৃথ্বী শ? এই প্রশ্ন এখন ক্রিকেটমহলে।

Advertisement

#Trending

More in Cric Gossip