Connect with us

Cricket News

Sunil Gavaskar: সময় থাকতে শচীনের শরণাপন্ন হওয়া উচিত কোহলির , কোহলি-অ্যান্ডারসন প্রসঙ্গে মন্তব্য করলেন সুনীল গাভাস্কার

Advertisement
Advertisement

২০১৯ সালের পর থেকে একদমই ফর্মে নেই বিরাট কোহলি। বিগত দু বছরে তার সর্বোচ্চ স্কোর মাত্র ৯৪। এমনকি রানের খাতা না খুলেই প্যাভিলিয়নে ফিরেছেন বেশ কয়েকবার। বর্তমানে ইংল্যান্ড সফরেও সেই একই ব্যর্থতায় ভুগছেন বিরাট কোহলি। চলতি সিরিজের প্রথম ম্যাচে শূন্য রানে নিজের উইকেট হারানো বিরাট কোহলি। দ্বিতীয় ম্যাচে অবশ্য কিছুটা ছন্দে ফিরেছিলেন তিনি। কিন্তু সিরিজের তৃতীয় ম্যাচে আবারো ছন্দহারা হলেন বিরাট কোহলি। ব্যক্তিগত ৭ রানে জেমস অ্যান্ডারসনের বলে নিজের উইকেট হারালেন তিনি। ইতিমধ্যে বিভিন্ন মাধ্যমে বিগত দিনগুলোতে বিরাট কোহলির পারফরম্যান্স নিয়ে সমালোচনার ঝড় উঠেছে।

Advertisement

এবার সেখানেই নিজের বক্তব্য রাখলেন প্রাক্তন ভারতীয় ওপেনার সুনীল গাভাস্কার। তিনি বলেন, বর্তমানে বিরাট কোহলি ছন্দ ছাড়া হয়েছেন। আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে একটি ভালো ম্যাচের প্রয়োজন তার পুরনো ছন্দে ফিরে আসার জন্য। কিন্তু তিনি ইংল্যান্ড সফরে বারবারই জেমস অ্যান্ডারসনের কাছে নিজের উইকেট সমর্পণ করছেন। এটি তাঁর ক্রিকেট ক্যারিয়ারে ভয়াবহ প্রভাব ফেলতে পারে। তাই সময় থাকতে বিরাট কোহলির এখনই উচিত শচীন টেন্ডুলকারের শরণাপন্ন হাওয়া। অফ স্টাম্পের বাইরের বল খেলতে গিয়ে বারবার ক্যাচ আউট হচ্ছেন তিনি। এই বিষয়ে শচীন টেন্ডুলকারের সাথে কথা বলা উচিত বিরাট কোহলির।

দীর্ঘদিনের অভিজ্ঞ ব্যাটসম্যান শচীন টেন্ডুলকার এ বিষয়ে অবশ্যই তাকে সাহায্য করতে পারবেন বলে আমার বিশ্বাস। তাছাড়া অফ স্টাম্পের বাইরের বল কিভাবে খেলতে হয় সেটি শচীন টেন্ডুলকার খুবই ভালভাবে দেখিয়েছেন ক্রিকেট বিশ্বকে। তার অগাধ জ্ঞানের সম্ভার থেকে বিরাট কোহলির উচিত হবে কিছুটা জ্ঞান অর্জন করা। তার মতো একজন ধারাবাহিক ক্রিকেটারের এমন করুণ পরিণতি কোনোভাবেই মেনে নিতে পারছিনা আমি। বড় কোনো অঘটন ঘটার আগে আমি মনে করি তার এই পদক্ষেপটি নেওয়া একান্ত প্রয়োজন। উল্লেখ্য, বিরাট কোহলি আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে শেষ শতক করেছিলেন ২০১৯ সালে বাংলাদেশের বিরুদ্ধে। তারপর থেকে একের পর এক ম্যাচে ব্যর্থতার পরিচয় দিয়ে মাঠ ছাড়ছেন তিনি। চলতি সিরিজে একের পর এক ইনিংসে নিজের উইকেট তুলে দিচ্ছেন জেমস অ্যান্ডারসনের হাতে।

Advertisement

#Trending

More in Cricket News