IPL 2020Cricket

পঞ্চমবার মুম্বই না প্রথমবার দিল্লি কোন দল আজ চ্যাম্পিয়ন হবে?

দেখুন দু-দলের সম্ভাব্য প্রথম একাদশ

দীর্ঘদিনের লড়াইয়ের ফলাফল আজ পেতে চলেছেন ক্রীড়াপ্রেমীরা। দুবাই ইন্টারন্যাশনাল ক্রিকেট স্টেডিয়ামে আজ আইপিএলের ফাইনালে মুখোমুখি হচ্ছে মুম্বই ইন্ডিয়ান্স ও দিল্লি ক্যাপিটালস। ৫ বার আইপিএলের ফাইনাল খেলে ৪ বার চ্যাম্পিয়ন হয়েছে মুম্বই। আর দিল্লি প্রথমবার আইপিএলের ফাইনালে খেলছে।

দিল্লি অধিনায়ক শ্রেয়াস আইয়ারের কথায় তাঁদের পথটা ছিল অনেকটা চড়াই-উৎরাই পেরিয়ে আসার মতন ব্যাপার। আইপিএলের দ্বিতীয় ম্যাচে দিল্লি মুখোমুখি হয়েছিল কিংস ইলেভেন পঞ্জাবের। সুপার ওভারে জেতা সেই ম্যাচ আত্মবিশ্বাস বাড়িয়ে দিয়েছিল শ্রেয়াসদের। প্রথম ৬টা ম্যাচের মধ্যে ৫টিতেই জয়। হারতে হয় শুধু সানরাইজার্স হায়দরাবাদের কাছে। যাদের হারিয়েই ফাইনালে জায়গা করে নিয়েছে দিল্লি। তবে মুম্বই ইন্ডিয়ান্সের কাছে লিগের দুটো ম্যাচেই হারতে হয়েছে দিল্লিকে। এ বারের টুর্নামেন্টে এক বারও রোহিতদের হারাতে পারেননি শ্রেয়াসরা।

টুর্নামেন্টের মাঝপথে খেই হারিয়ে ফেলে দিল্লির তরুণ ব্রিগেড। চোটের জন্য অমিত মিশ্র, ইশান্ত শর্মাদের হারিয়ে ভীত নড়ে যায় দলটার। একের পর এক ম্যাচ হারতে থাকে তারা। যদিও দলের অভিজ্ঞ ওপেনার শিখর ধাওয়ান এরই মধ্যে টুর্নামেন্টে পর পর ২ ম্যাচে শতরানের রেকর্ড গড়েন। দলের সর্বোচ্চ রান সংগ্রহকারী তিনিই। ১৬ ম্যাচে তিনি করেছেন ৬০৩ রান, গড় ৪৬.৩৮। ফাইনালে ৬৮ রান করতে পারলে সুযোগ রয়েছে অরেঞ্জ ক্যাপ জেতার। শেষ ম্যাচে কোয়ালিফায়ার ২ তে সানরাইজার্স হায়দরাবাদকে হারানোর ক্ষেত্রে ৭৮ রান করেন ধাওয়ান। ফলে আজ মুম্বইয়ের বিরুদ্ধে নিজের সেরাটা দিতে চাইবেন তিনি। পার্পেল ক্যাপের মালিক কাগিসো রাবাদা এই মুহূর্তে ১৬ ম্যাচে ২৯ উইকেট নিলেও, ফাইনালের তাঁর লড়াই হবে যশপ্রীত বুমরার সঙ্গে। তরুণ অধিনায়ক শ্রেয়াসের নেতৃত্বে প্লে অফে ওঠার জন্য কাঙ্ক্ষিত পয়েন্ট সংগ্রহ করে নেয় তারা। এখন দেখার টুর্নামেন্টে মুম্বইকে প্রথমবারের জন্য হারিয়ে কাপ তুলে নিতে পারে কিনা ‘নয়া দিল্লি’।

এর আগে পাঁচটা আইপিএল ফাইনাল খেলা মুম্বই ইন্ডিয়ান্সের ফাইনালের চাপ সামলানোর অভ্যাস রয়েছে। তরুণ ঈশান কিষাণ, অভিজ্ঞ কুইন্টন ডি’ককের ফর্ম যেমন ব্যাটিংকে শক্তিশালী করেছে তেমনই ট্রেন্ট বোল্ট এবং জসপ্রীত বুমরাহ  কাঁধে তুলে নিয়েছেন বোলিংয়ের দায়িত্ব। ১৩ ম্যাচে ঈশানের সংগ্রহ ৪৮৩ রান, গড় ৫৩.৬৬। ডি ককের সংগ্রহ ৪৮৩ রান। তিনি যদিও খেলেছেন ১৫টি ম্যাচ। ওপেনিংয়ে তাঁর ব্যাট ঢেকে দিয়েছে রোহিত শর্মার অফ ফর্মও। বল হাতে বুমরার সংগ্রহ ১৪ ম্যাচে ২৭ উইকেট। অন্য দিকে বোল্ট নিয়েছেন ২২টি উইকেট। তাঁদের জুটি প্রতি ম্যাচেই ত্রাস হয়ে উঠেছে প্রতিপক্ষের কাছে। ফাইনালেও যা চিন্তা বাড়াবে দিল্লির। এই ম্যাচে জয়ন্ত যাদবের প্রথম একাদশে খেলার সম্ভাবনা রয়েছে। যেহেতু দিল্লির ব্যাটসম্যানরা স্পিন ভাল খেলে তাই জয়ন্ত যাদবকে দলে নিয়ে দিল্লির ব্যাটসম্যানদের চাপে ফেলতে চাইছেন রোহিত শর্মা।

মুম্বইয়ের কাছে সুযোগ রয়েছে পঞ্চমবার আইপিএল খেতাবা জেতার। আর দিল্লির কাছের প্রথমবার। এখন দেখার টুর্নামেন্টে মুম্বইকে প্রথমবারের জন্য হারিয়ে কাপ তুলে নিতে পারে কিনা দিল্লি ক্যাপিটালস না কী প্রথমবার আইপিএল খেতাবা যেতে মুম্বই ইন্ডিয়ান্স।

একনজরে দেখে নিন দুই দলের সম্ভাব্য প্রথম একাদশ : 

মুম্বই ইন্ডিয়ান্স :

রোহিত শর্মা, কুইন্টন ডি কক, সূর্যকুমার যাদব, ঈশান কিষান, হার্দিক পান্ডিয়া, কায়রন পোলার্ড, করুনাল পান্ডিয়া, ন্যাথান কুলটার-নাইল, রাহুল চাহার, ট্রেন্ট বোল্ট, জসপ্রীত বুমরাহ

দিল্লি ক্যাপিটালস :

শিখর ধাওয়ান, মার্কাস স্টোইনিস, অজিঙ্কে রাহানে, শ্রেয়াস আইয়ার, ঋষভ পন্থ, শিমরন হেটমায়ার, অক্ষর প্যাটেল,  রবিচন্দ্রন অশ্বিন, কাগিসো রাবাদা, এনরিচ নর্টজে, হার্ষাল প্যাটেল

 

 

 

Related Articles

Back to top button