IPL 2020Cricket

কোহলির খারাপ পারফরম্যান্স নিয়ে আক্রমণাত্মক সুনীল গাভাসকার

আইপিএলে নিজের প্রত্যাশা অনুযায়ী খেলতে পারেননি কোহলি। কোহলির ব্যাটিং ব্যর্থতাই আইপিএল থেকে আরসিবির তাড়াতাড়ি ছিটকে যাওয়ার অন্যতম প্রধান কারণ। বেঙ্গালুরুর পারফরম্যান্স পর্যালোচনা করে এমনটাই জানিয়েছেন সুনীল গাভাসকর।

শুক্রবার হায়দরাবাদের কাছে এলিমিনেটরে হেরে ছিটকে যাওয়ার পরেই গাভাসকার স্টার স্পোর্টসে জানিয়ে দেন, “নিজে এক অসামান্য উচ্চতা তৈরি করেছে কোহলি। সেই উচ্চতায় এবার পৌঁছাতে পারেনি কোহলি। এই কারণেই আরসিবি ফাইনালে উঠতে পারল না। ও যখনই বড় স্কোর গড়েছে সেটা এবি ডিভিলিয়ার্সের সঙ্গেই।”

শুক্রবার আবু ধাবি-তে হায়দরাবাদের কাছে ছয় উইকেটে হেরে বিদায় নিয়েছে আরসিবি। এই নিয়ে টানা পাঁচ ম্যাচ হারল বিরাটের দল। টুর্নামেন্টের শুরুতে প্রথম ১০ ম্যাচের ৭টিতেই জিতেছিল কোহলিরা। তার পরেই তাদের হার শুরু হয়।

কোহলি নিজেও সেভাবে জ্বলে উঠতে ব্যর্থ হয়েছেন গুরুত্বপূর্ণ সময়ে। ১৫ ম্যাচে তাঁর সংগ্রহ ৪৬৬ রান। তা-ও আবার ১২১.৩৫ স্ট্রাইক রেটে। কোহলি মিডল অর্ডারে রান না পাওয়ায় বেশ কিছু ম্যাচে সমস্যায় পড়েছে বেঙ্গালুরু। তার জন্য বিপক্ষকে বড় টার্গেট দিতে ব্যর্থ রয়েছে এবং ম্যাচ হেরেছে।

গাভাসকার আবার বোলিংয়ের বিষয়টিও তুলে ধরেছেন। বলছেন, “বোলিং ওদের বরাবরের দুর্বল জায়গা। ওদের ব্যাটিং সেই তুলনায় অনেক শক্তিশালী। টি-২০ স্পেশালিস্ট ফিঞ্চ রয়েছে। দেবদত্ত পাডিক্কল দুরন্ত খেলেছে। তারপর কোহলি, এবি আছে। এমন ব্যাটিং লাইন আপ নিয়ে ফাইনালে না ওঠা আশ্চর্যের।”

শুধু তাই নয়, গাভাসকার আরসিবির স্ট্র্যাটেজি নিয়েও সমালোচনা করেছেন। এই প্রসঙ্গে তিনি বলেন, “শিবম দুবে-কে আরো ভালভাবে ব্যবহার করা যেত। দুবে-কে নীচে খেলানো হচ্ছে। আবার ওয়াশিংটনকে উপর নিচ করা হয়েছে। ওদের নিজের দায়িত্ব স্পষ্ট করে বলে দেওয়া উচিত যে ক্রিজে গিয়ে হাঁকাতে থাকো। দুবে তো রীতিমত বিভ্রান্তির শিকার। ৫ নম্বরে যদি একজন ভালো ক্রিকেটার ওরা পেত, বিরাট-এবির উপর থেকে চাপ অনেক কমে যেত।”

এবছরে আরসিবি যেভাবে শুরু করেছিল সেখান থেকে হঠাৎ যেভাবে খেই হারিয়ে শেষ পর্যন্ত প্লে-অফে গিয়ে ছিটকে গেল সেটা দলের সমর্থকদের খুবই হতাশ করেছে। ২০১৬-র পর প্লে-অফে গিয়েও তারা কিছু করতে পারল না।

Related Articles

Back to top button