IPL League

মুম্বাই দল থেকে এই কারণে হাতছাড়া হতে পারে ইশান কিষাণ ও সূর্যকুমার যাদব

ইংল্যান্ডের সাথে টি২০ সিরিজের দ্বিতীয় ম্যাচে দুর্দান্ত কামব্যাক করে টিম ইন্ডিয়ার। ইংল্যান্ডের বিপক্ষে বিশাল ৮ উইকেটে প্রথম টি-টোয়েন্টি আন্তর্জাতিকে পরাজয়ের পর ভারত তাদের দ্বিতীয় খেলায় দুটি পরিবর্তন করে। দল উদ্বোধনী ব্যাটসম্যান শিখর ধাওয়ান এবং স্পিন অলরাউন্ডার আক্সার প্যাটেলের জায়গায় সুযোগ দেয় ঈশান কিষাণ ও সূর্যকুমার যাদবকে। দ্বিতীয় ম্যাচে ৭ উইকেটে ইংল্যান্ডকে হারিয়ে জয় ছিনিয়ে আনে বিরাট এন্ড কোং।

ভারতীয় দলের হয়ে অভিষেক করেন আইপিএল ২০২০-তে সাড়া জাগানো ইশান কিষাণ ও সূর্যকুমার যাদব। গত ম্যাচে ব্যর্থ হওয়া ওপেনার শিখর ধাওয়ানের পরিবর্তে ইশান কিষাণকে সুযোগ দেওয়া হয়। আর সেই সুযোগের সদ্ব্যবহার করে মাত্র ৩২ বলে ৫৬ রানের ইনিংস খেলেন তিনি। তবে এই ম্যাচে ব্যাটিং এর সুযোগ পাননি সূর্যকুমার। যাইহোক, সূর্য এবং কিষাণকে আগামী আইপিএলে সম্ভবত একসঙ্গে ধরে রাখতে পারবে না মুম্বই ইন্ডিয়ান্স।

২০২১ এর মিনি আইপিএল নিলামের পর ভারতীয় ক্রিকেট কন্ট্রোল বোর্ড (বিসিসিআই) ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লীগের (আইপিএল) ১৫তম সংস্করণের জন্য মেগা নিলামের আয়োজন করবে এবং এই টুর্নামেন্ট দুটি নতুন দলের অন্তর্ভুক্তিও ঘটবে। রিটেনশন রুলে বলা হয়েছে যে একটি আইপিএল ফ্র্যাঞ্চাইজি যে কোন তিনজন খেলোয়াড়কে ধরে রাখতে পারে। আইপিএল নিলামের সময় শুধুমাত্র একজন বিদেশী এবং একজন আনক্যাপড খেলোয়াড়কে রাখার জন্য আরটিএম ব্যবহার করা যেতে পারে। এই পরিস্থিতিতে,যে তিন তারকাকে মুম্বই রিটেন করবে তা ইতিমধ্যেই চূড়ান্ত। মুম্বাই ইন্ডিয়ান্স রোহিত শর্মা, জসপ্রীত বুমরাহ এবং হার্দিক পান্ডিয়া কে তিন জন ভারতীয় খেলোয়াড় হিসেবে ধরে রাখবে।
কার্যত ঈশান কিষাণ এবং সূর্যকুমার যাদব উভয়কেই ছেড়ে দিতে হবে। আরটিএম কার্ডের মাধ্যমে পোলার্ডকে ধরে রাখতে পারে মুম্বাই ফ্রাঞ্চাইসি।

আইপিএলের ১৫তম সংস্করণের জন্য টপ পিক হতে চলেছেন ঈশান কিষাণ ও সূর্যকুমার যাদব। যে কোনো দলই এই দুই তরুণকে দলে নিতে ঝাঁপাবে। সূর্যকুমার যাদব অভিষেক ঘটলেও ব্যাটিং করার সুযোগ পাননি। কিন্তু ব্যাট হাতে অভিষেক ম্যাচেই জ্বলে উঠেছেন ঈশান কিষাণ।

আরও পড়ুন

Back to top button