Connect with us

Cricket News

KKR Vs MI: ব্যাটে বল লাগার চিহ্ন মাত্র নেই অথচ স্পাইক! রোহিত শর্মার আউট নিয়ে তুমুল উত্তেজনা নেটপাড়ায়

Advertisement
Advertisement

গতকাল দিনের একমাত্র ম্যাচে মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সের বিপক্ষে ২২ গজের লড়াইয়ে নেমেছিল কলকাতা নাইট রাইডার্স। তবে ধারাবাহিকতার অভাবে কলকাতার সামনে রীতিমতো মুখ থুবড়ে পড়ে মুম্বাই ইন্ডিয়ান্স। কলকাতার বিরুদ্ধে মুম্বাইয়ের পরাজয় হলেও নেট মাধ্যমে আলোচনা এখন অন্য বিষয়কেন্দ্রিক। প্রথমে ব্যাটিং করে কলকাতা নাইট রাইডার্সের দেওয়া ১৬৫ রানের লক্ষ্যমাত্রা নিয়ে খেলতে নেমে ভাগ্যের পরিহাসে আউট হয়ে সাজঘরে ফেরেন মুম্বাইয়ের অধিনায়ক রোহিত শর্মা। আর সেটাই এখন নেট পাড়ায় অন্যতম আলোচনার বিষয়বস্তু হয়ে দাঁড়িয়েছে।

গতকাল মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সের ব্যাটিং ইনিংসের প্রথম ওভারের শেষ বলে আউট হয়ে যান রোহিত। তবে সেই সিদ্ধান্ত নিয়ে বিতর্ক শুরু হয়। কলকাতার অন্যতম সেরা পেসার টিম সাউদির ব্যাক অফ দ্য লেন্থ বল ঠুকে দিতে যান রোহিত শর্মা। তবে সেই চেষ্টা সফল হয়নি তার। উইকেটের পিছনে থাকা শেলডন জ্যাকসনের হাতে বল জমা পড়ে। ক্যাচের আবেদন করা হয় নাইট শিবিরের তরফ থেকে। কিন্তু সেই আবেদন খারিজ করে দেন অনফিল্ড আম্পায়ার। ডিআরএস নেন কেকেআর অধিনায়ক শ্রেয়স আইয়ার। আর এরপরেই ঘটে অলৌকিক ঘটনা।


ডিসিশন রিভিউ সিস্টেমে দেখা যায় বল ব্যাট থেকে অনেক দূরে থাকলেও ‘স্পাইক’ ধরা পড়েছিল। বল যত ব্যাটের নিকট যেতে থাকে স্পাইক এর পরিধিও ততই বাড়তে থাকে। এমন পরিস্থিতিতে বোঝার উপায় ছিল না ব্যাটে-বলে আদৌ সংযোগ ঘটেছে কিনা। তবে ডিআরএস পদ্ধতির ওপর গুরুত্ব রেখে রোহিত শর্মাকে আউট দেওয়া হয়। এরপর অবশ্য ক্রিকেটপ্রেমীরা দুই ভাগে বিভক্ত হয়ে পড়েন। অনেকেই লিখেছেন, রোহিত শর্মার ভাগ্য খারাপ সেই জন্য আউট হয়েছেন তো অনেকেই লিখেছেন, বল ও ব্যাটের মধ্যে যথেষ্ট গ্যাপ ছিল, কিন্তু তৃতীয় আম্পায়ারের হাত পা বাধা। তাই বাধ্য হয়ে আউট দিয়েছেন তিনি।

Advertisement

#Trending

More in Cricket News